ইসরাইল সম্পর্কে জানা-অজানা কিছু তথ্য

প্রতিদিন যারা খবরের কাগজ পড়ে থাকেন তাদের বেশিরভাগই ইসরাইল দেশটির সাথে পরিচিত, কেননা বর্তমানে খবরের কাগজ খুললেই হদিস মিলে ইসরাইল নামক দেশটির নানা যুদ্ধ বিপর্যয়ের খবর।  তবে সেদিকে যাচ্ছি না আমরা, যুদ্ধ বিপর্যয় এই সকল বিষয় বাদ দিলেও কিন্তু দেশটি সম্পর্কে নতুন করে জানার অনেক কিছুই আছে যা আমাদের সম্পূর্ণ অজানা। চলুন জেনে নেয়া যাক ইসরাইল সম্পর্কে জানা অজানা কিছু তথ্য –

ইসরাইলের মানচিত্র
Source: Lonely Planet

১. ইসরাইল দেশটি পৃথিবীর সর্বনিম্ন অঞ্চলে অবস্থিত। এর প্রমাণ পাওয়া যায় মৃত সাগর বা ‘দি ডেড সি’ মাধ্যমে,  যা সমুদ্রপৃষ্ঠ থেকে ১৩১৫ ফুট নীচে অবস্থিত। তবে মজার ব্যাপার হলো এই সমুদ্রে ডুবে যাওয়ার কোন সম্ভাবনা নেই, এর কারণ হলো সমুদ্রের জল ঘনত্ব এবং লবণ মাত্রার তীব্রতা।

২. বর্তমানে আমরা যে স্মার্ট ফোন ব্যবহার করি তার প্রধান সেল ফোন প্রযুক্তি তৈরি করেন মটোরোলা ইজরায়েল আর এন্ড ডি সেন্টার এর ইসরাইলের প্রকৌশলীরা।  সেক্ষেত্রে বলা বর্তমানে যেই প্রযুক্তি আমরা ব্যবহার করছি এর পেছনে ইসরাইলদের বড় ধরনের অবদান রয়েছে।

৩. ইসরায়েল বিশ্বের একমাত্র দেশ যে তার ডাকটিকিটের জন্য খাঁটি আঠা ব্যবহার করে! যা বিশ্বের অন্য  কোন দেশেই করা হয়না।

ইসরাইলের বংশধরদের দেরী মধ্যযুগীয় মানচিত্র
Source: http://www.mfa.gov.il

৪. মুসলমানরা বিশ্বের মুসলিম রাষ্ট্রগুলোর মধ্যে সবচেয়ে ঘৃণিত হলো  ইসরাইল । এর কারণ এই রাষ্ট্র জন্মের পর কয়েক দশকের মধ্যেই কয়েক হাজার মুসলিম নর-নারীকে হত্যা করেছে । তবে মিশর ইসরাইলকে স্বীকৃতি দানকারী প্রথম মধ্যপ্রাচ্যের রাষ্ট্র ছিল।

৫. ইসরায়েলের প্রাচীন ভূমিতে রয়েছে হাজার হাজার প্রত্নতাত্ত্বিক স্থান। এর মধ্যে শুধুমাত্র জেরুজালেমেই রয়েছে ২০০০ স্থান। তাই আপনি চাইলে ঘুরে আসতে পারেন এই সকল প্রত্নতাত্ত্বিক স্থানে,  কে জানে হয়তো কোনো অমূল সম্পদও পেয়েও যেতে পারেন!

৬. বিশ্বের যেকোনো দেশের তুলনায় ইসরাইলের মাথাপিছু যাদুঘরের সংখ্যা সবচেয়ে বেশি। এর কারণ প্রত্নতাত্ত্বিক স্থানের সংখ্যাও বেশি।  

৭. ইসরায়েলের বন্দর নগরী ইলিয়টকে ফ্রি ট্রেড জোন ঘোষণা করেছেন অর্থাৎ সমস্ত কেনাকাটা ভ্যাট মুক্ত।

৮. বিশ্বের যেকোন দেশের তুলনায় ইসরাইলের মাথাপিছু বাদক দল বেশি।  বলা হয় যে, শাস্ত্রীয় সঙ্গীত শোনার মাধ্যমে আপনার আইকিউ উত্থাপিত হয়, যা অনেক বুদ্ধিজীবী ক্ষেত্রগুলিতে ইসরাইলের অগ্রগামী স্থান সম্পর্কে অনেকটা ব্যাখ্যা করে।  

৯. প্রতিবছরই ইসরায়েল সর্বোচ্চ পরিমাণে “স্টার্ট-আপ”  হয়। এটি বিশ্বের তৃতীয় উদ্যোগী রাজধানী যারা প্রতিবছর নতুন কিছু করে।  

পতাকা Source: Wikipedia

১০. ইসরায়েল এর দুটি সরকারী ভাষা রয়েছে : হিব্রু এবং আরবি। এটি একমাত্র দেশ যারা একটি অযৌক্তিক ভাষা পুনরুজ্জীবিত করে এবং এটি তাদের জাতীয় ভাষা হিসেবে প্রতিষ্ঠা করে।

১১. মধ্যপ্রাচ্যের ভূখণ্ডের ১/৬ অংশের কেবল ১% ইসরায়েল এর ভূখণ্ড!  বোঝাই যাচ্ছে দেশটির আয়তন অনেক কম।

১২. গোল্ডা মীর ছিলেন ইতিহাসের ৩য় নারী যিনি দেশের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।  

১৩. ইসরায়েল এই পর্যন্ত পাঁচটি ব্রোঞ্জ অলিম্পিক পদক, এক রৌপ্য এবং এক স্বর্ণ জিতেছে, দেশটির জন্য এই প্রাপ্তি অনেক বড়!

১৪. ১৯৪৮ সাল থেকে ১০ মিলিয়নেরও বেশি উজি মেশিন বন্দুক নির্মাণ করা হয়েছে ইসরাইলে,  যা তৈরি করেন মেজর উজি গাফ।

১৫. ইসরায়েলের ২০১৩ সালের নির্বাচনে ৩৪ রাজনৈতিক দল অংশ নেয়!

১৬. মধ্যপ্রাচ্যে ইসরায়েল একমাত্র দেশ যেখানে উদার গণতন্ত্র রয়েছে।

১৭.  ইসরাইলে অনেক বাস স্টপে আপনি ‘tzedakah’ অর্থাৎ  দাতব্য দানের জন্য বাক্স পাবেন।

১৮. উইন্ডোজ এনটি অপারেটিং সিস্টেমের বেশিরভাগই মাইক্রোসফট (ইসরায়েল) দ্বারা তৈরি করা হয়েছিল।

১৯. ইন্টেলের পেন্টিয়াম এমএমএমএস চিপ প্রযুক্তি ইসরাইলে ডিজাইন করা হয়েছিল, যা তখন বেশ যুগান্তকারী পরিবর্তনে সাহায্য করে।  

২০. আমরা অনেকেই আজকাল ভয়েস মেইল করে থাকি, এই ভয়েস মেল প্রযুক্তিও ইসরায়েলে তৈরি হয়েছিল!  

২১. ইসরাইলের ‘তেল আভিভ’ স্থানে ১০০ টির বেশি সুশি রেস্তোরাঁ রয়েছে।  যা টোকিও এবং নিউ ইয়র্ক এর পর মাথাপিছু সবচেয়ে বেশি সুশি রেস্টুরেন্টের শহর।

২২. ইসরায়েল প্রথম দেশ যেখানে কম ওজনধারী মডেল নিষিদ্ধ করা হয়,  যাদের বিএমআই ১৮.৫ এর নিচে তারা মডেল হতে পারবেনা।

২৩. সবজি এবং মিষ্টি গ্রাস করায় ইসরায়েল তৃতীয় বৃহত্তম দেশ!  বোঝাই যাচ্ছে তারা বেশ মিষ্টিপ্রিয় মানুষ তার সাথে স্বাস্থ্যপ্রিয়ও বটে!

২৪. ‘আউট’ ম্যাগাজিন ইসরাইলকে মধ্য প্রাচ্যের সমকামীদের রাজধানী বলেছেন। মধ্য প্রাচ্যের এই দেশটিতে সমকামিতার সংখ্যা সবচেয়ে বেশি।  

২৫. ইসরাইলের ১৩৭ টি সরকারী সৈকত রয়েছে।  

সৈকত
Source: L’Attitude – BestValue

২৬. ইসরাইলের জনসংখ্যার ভিত্তিতে, দেশটিতে কলেজ ডিগ্রী অনুপাত সর্বোচ্চ।  

২৭. কম্পিউটারের প্রথম এন্টিভাইরাস সফটওয়্যারটি ১৯৭৯ সালে ইসরাইলে তৈরি করা হয়েছিল।

২৮. ইসরায়েল বিশ্বের অন্য যেকোনো দেশের তুলনায় বিভিন্ন  ভাষায় বই অনুবাদ করেছে!

২৯. ইসরাইলের ‘সিটি অফ বিরসেবা’ তে সর্বোচ্চ সংখ্যক দাবাড়ু গ্র্যান্ডমাস্টারের রয়েছে!  এর সংখ্যা বিশ্বের অন্য সকল দেশের থেকে বেশি।

৩০. আল প্যাচিনো চলচ্চিত্র এর ‘দ্য ইনসাইডার’ সিনেমার প্রারম্ভিক দৃশ্যটি ইসরাইলে ধারণ করা হয়েছিল। যারা সিনেমাটি দেখেনি তারা কিন্তু একবার দেখে আসতে পারেন!

৩১. হাইফা নামে ইসরাইলে বিশ্বের সবচেয়ে ছোট সাবওয়ে সিস্টেম রয়েছে যা ১.৮-কিলোমিটার ট্র্যাক এবং মাত্র চারটি বগি দিয়ে তৈরি!  বেশ সুন্দর তাইনা?

৩২. সংশোধিত সংবিধান ব্যতীত গণতন্ত্রে ইসরাইল পৃথিবীর ৩য় দেশ।  বাকি দুটি হলো নিউজিল্যান্ড এবং ব্রিটেন।

৩৩. ২০১৩ সালে গিনেস বুক অব ওয়ার্ল্ড রেকর্ডস দ্বারা রেকর্ডকৃত ইসরায়েল এর ‘মোষভ ইয়ান ইয়াহ্যাতে’ বিশ্বের বৃহত্তম মরিচ আবিষ্কার করা হয়।

৩৪. ইসরাইলে একজন ব্যক্তির গড় আয়ু ৮২ বছর।  

ইসরাইলের জাতীয় পাখি ‘হুপো’
Source: eBird

৩৫. ইসরাইলের জাতীয় পাখি ‘হুপো’।  তাছাড়াও ‘এলেট’ এবং ‘হুলা ভ্যালি’ বিশ্বের সেরা পাখি দর্শনের স্থানগুলির একটি।  

৩৬. ইসরাইলের স্টেম-সেল প্রযুক্তির কারণে আমেরিকার হার্টের টিস্যু পুনর্জন্ম সম্ভব হয়েছে! যা চিকিৎসা খাতকে আরো উন্নত করে দিয়েছে।  

৩৭. ইসরাইলে এমন একটি রান্নার তেল আবিষ্কার হয় যা কোলেস্টেরল এবং অন্যান্য রক্তের ফ্যাট ভাঙ্গার ক্ষমতা রাখে।  

৩৮. ইসরাইলের বিজ্ঞানীরা  দীর্ঘকালস্থায়ী খারাপ শ্বাসের কারণ এবং এটি ঠিক করার জন্য একটি সহজ উপায় আবিষ্কার করেছেন!

৩৯. ইসরাইলের নিবন্ধিত সব আইনজীবীদের মধ্যে ৪৪% এর বেশি মহিলা।

৪০. ইসরায়েলের জাতীয় ফুল হলো ‘সিকলামেন পারসিকাম’। ২০১৩ সালে ভ্যালেন্টাইন্স ডে তে ৬০ মিলিয়ন ফুল বিক্রয়ের জন্য ইসরাইল থেকে ইউরোপ পাঠানো হয়েছিল।